আন্দোলনরত কৃষকদের তুলোধোনা শীর্ষ আদালতের

কৃষি আইনের বিরুদ্ধে যন্তর মন্তরে প্রদর্শন করার দাবি নিয়ে দাখিল করা মামলার শুনানিতে সুপ্রিম কোর্ট কড়া প্রতিক্রিয়া দিয়েছে। সুপ্রিম কোর্ট কৃষক মহাপঞ্চায়েতকে বলে, আপনারা যখন আদালতে এসেছেন তাহলে ধর্না কেন দিচ্ছেন? শীর্ষ আদালত কৃষকদের বলে, আপনাদের প্রদর্শন করার অধিকার রয়েছে, কিন্তু জাতীয় সড়ক অবরুদ্ধ করে যাতায়াত বন্ধ করার কোনও অধিকার নেই। আপনাদের বিক্ষোভের কারণে সাধারণ মানুষকে বিভিন্ন সমস্যার মুখে পড়তে হচ্ছে।

সুপ্রিম কোর্ট কিষান মহাপঞ্চায়েত সংগঠনের বিরুদ্ধে ক্ষোভ জাহির করে বলে, দীর্ঘদিন ধরে বিরোধিতা করা কৃষকরা গোটা শহরের শ্বাসরোধ করেছে আর এখন শহরের ভিতরে এসে উৎপাত করছে। শহরের মানুষরা কী নিজেদের ব্যবসা বন্ধ করে দেবে? আপনাদের প্রদর্শনের কারণে কী মানুষ খুশি হবে?

সুপ্রিম কোর্টের বিচারপতি সঞ্জয় কিশন কৌলের নেতৃত্বাধীন বেঞ্চ বলে, বিক্ষোভ দেখানো কৃষকরা যানবাহনের চলাচল বন্ধ করে দিচ্ছে, ট্রেন আর জাতীয় সড়ক অবরুদ্ধ করছে। নিরাপত্তারক্ষীদের বিরক্ত করছে। আর এরপর বিক্ষোভ দেখানোর দাবিতে আদালতে মামলা করছে। এরকম বিক্ষোভ দেখানোর অনুমতি কীভাবে দেওয়া যেতে পারে?

সুপ্রিম কোর্টে দাখিল পিটিশনে কিষান মহাপঞ্চায়েতকে শীর্ষ আদালত বলেছে, আগে আপনারা হলফনামা দায়ের করে এটা বলুন যে সীমান্তে প্রদর্শন করা কৃষকদের সঙ্গে আপনাদের কোনও সম্পর্ক নেই। সুপ্রিম কোর্ট এই মামলার শুনানির আগামী সোমবার সময় দিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.