হনুমান জয়ন্তী পরম রামভক্ত , রুদ্রের আংশিক অবতার বীর হনুমানের জন্ম তিথি উপলক্ষে ভারতবর্ষের অধিকাংশ জায়গায় চৈত্র মাসের পূর্ণিমার সময় পালিত হয়। কর্ণাটক , তামিলনাড়ু, কেরল, মহারাষ্ট্রে হনুমান জয়ন্তী একটি জনপ্রিয় উৎসব। তেলেঙ্গানা ও অন্ধ্রপ্রদেশে হনুমান জয়ন্তী ৪১ দিন ব্যাপী পালিত হয়।হনুমানের মাতা অঞ্জনা আর পিতা কেশরী। কেশরী বর্তমান কর্ণাটকRead More →

কাউন্টডাউন চলছিলই। রবিবার সকালটা আসতেই যেন তৎপরতা আরও কয়েকগুণ বেড়ে গিয়েছে আয়োজকদের। শেষবেলায় সব ঠিকঠাক আছে কিনা ঘুরে ঘুরে দেখে নিচ্ছেন আয়োজকরা। গীতপাঠের (Gita reading program in brigade) মূল অনুষ্ঠান শুরুর কথা সকাল ১০টা থেকে। এদিকে সকাল থেকেই কুয়াশার চাদরে ঢাকা পড়েছে গোটা কলকাতা। জেলাতেও ছবিটা একই। দেরি চলছে দূরপাল্লারRead More →

কলকাতায় ব্রিগেডের মাঠে ২৪ ডিসেম্বর, রবিবার আয়োজিত হচ্ছে গীতাপাঠ অনুষ্ঠান। ‘লক্ষ কণ্ঠে গীতাপাঠ’ শীর্ষক এই অনুষ্ঠানে বাংলার বিভিন্ন প্রান্তের সনাতন ধর্মাবলম্বীরা ভিড় জমাবেন রাজধানী কলকাতায়। প্রচুর সাধুসন্ত সমাগমের সাক্ষীও রবিবার থাকবে মহানগরী কলকাতা। সেখানেই সমস্বরে গীতা পাঠে মেতে উঠবেন সকলে। এই অনুষ্ঠানের অন্যতম প্রধান আকর্ষণ ছিলেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। কিন্তুRead More →

২৪ ডিসেম্বর ব্রিগেডে লক্ষ কণ্ঠে গীতাপাঠের (Bhagavad Gita Path) আসর বসছে। ময়দানে দম ফেলার সময় নেই আয়োজকদের। প্রস্তুতি প্রায় সারা হয়েছে। শেষ মুহূর্তের কাজ চলছে জোর কদমে। গেরুয়া পতাকা, ফেস্টুনে ভেরে গিয়েছে বিগ্রেড ময়দান। ব্রিগেডে লক্ষ কন্ঠে গীতাপাঠের আয়োজকরা হল অখিল ভারতীয় সংসকৃত পরিষদ, সংস্কৃতি সংসদ ও মতিলাল ভারত তীর্থRead More →

রবিবার আর কিছু পরেই সনাতন ধর্মের লক্ষ কণ্ঠে গীতাপাঠ অনুষ্ঠান শুরু হবে ৷ গঙ্গাবরণ করে সেই জল দিয়ে পুজো করে ব্রিগেডের সেই জায়গায় মণ্ডপ করা হবে ৷ আর আজ, শনিবার প্রস্তুতি পর্ব একেবারেই শেষের দিকে। সনাতন সংস্কৃতি সংসদ, মতিলাল ভারত তীর্থ সেবা মিশন আশ্রম, অখিল ভারতীয় সংস্কৃত পরিষদের পক্ষ এইRead More →

আজকের মতো সেদিনটাও ছিল #১৩ই_ডিসেম্বর, ঠিক বিশ বছর আগে ২০০১ সালের এক শীতল দিন। স্থান নয়াদিল্লী……আর পাঁচটা দিনের মতো সেদিনও সংসদ ভবনের গেটে অতন্দ্র পাহারায় CRPF এর জওয়ানরা, ব্যাতিক্রম একটাই, এক নম্বর গেটে পাহারায় ছিল এক মহিলা কনস্টেবল । এই গেটটি শুধুমাত্র কেন্দ্রীয় মন্ত্রী ও সাংসদদের জন্য নির্দিষ্ট । সেসময়Read More →

৩রা_ফেব্রুয়ারি ১৯৫৪, আজ থেকে প্রায় সত্তর বছর আগে দিনটা ছিলো মৌনি অমাবস্যা। আর স্বাধীনতার পর সেবারই প্রথম প্রয়াগে বসেছে পূর্ণ কুম্ভের মেলা। সব ঠিকঠাক চলছিল কিন্তু এদিন সকাল ৮টা থেকে ৯টার মধ্যে ঘটে গেল সেই ভয়ঙ্কর দুর্ঘটনা। পদপিষ্ট হয়ে মারা গেলেন বিভিন্ন রাজ্য থেকে আসা অসংখ্য পূণ্যার্থী। ঠিক ক’জন তারRead More →

18ই ডিসেম্বর 1927, গোরখপুর……সবে সন্ধ্যা নেমেছে । সেন্ট্রাল জেলের সামনে চাদরে মাথা মুখ ঢেকে টাঙ্গা থেকে নামলো এক বয়স্ক দম্পতি। গেটের দিকে এগুতেই বন্দুক উঁচিয়ে বেরিয়ে এলো সান্ত্রী, ঝোলা থেকে বুড়ো একটা কাগজ দেখাতে ইশারা করলো ভেতরে যেতে !সান্ত্রীর নির্দেশে পৌঁছুলো একটা আসবাবপত্র হীন ফাঁকা ঘরে । তল্লাশির পর সেখানেইRead More →

প্রসন্ন কুমার ঠাকুর (২১শে ডিসেম্বর, ১৮০১ — ৩০শে আগস্ট, ১৮৬৮) ছিলেন ঊনবিংশ শতাব্দীর এক সমাজ সংস্কারক। তিনি ছিলেন হিন্দু কলেজের (অধুনা প্রেসিডেন্সি বিশ্ববিদ্যালয়) অন্যতম প্রতিষ্ঠাতা গোপীমোহন ঠাকুরের পুত্র। তিনি ঠাকুর পরিবারের পাথুরিয়াঘাটা শাখার সদস্য ও তৎকালীন হিন্দু সমাজের একজন রক্ষণশীল নেতা ছিলেন। প্রসন্ন কুমার স্বগৃহে ও শেরবার্ন’স স্কুলে লেখাপড়া শেখেন।Read More →

পাঁচকড়ি বন্দ্যোপাধ্যায় (২০শে ডিসেম্বর, ১৮৬৬ —১৫ই নভেম্বর, ১৯২৩) একজন প্রখ্যাত বাঙালী সাংবাদিক ও সম্পাদক। পাঁচকড়ি বন্দ্যোপাধ্যায়ের জন্ম ব্রিটিশ ভারতের অধুনা বিহার রাজ্যের ভাগলপুরে ১৮৬৬ খ্রীস্টাব্দের ২০শে ডিসেম্বর (৬ই পৌষ, ১৭৮৮ শকাব্দ, বৃহস্পতিবার)। তাঁর পিতা বেণীমাধব বন্দ্যোপাধ্যায় ওই সময়ে ভাগলপুরের কালেক্টরেট অফিসে কর্মরত ছিলেন। তাঁর পৈতৃক নিবাস ছিল অধুনা উত্তর চব্বিশRead More →