দত্তপন্থ বাপুরাও ঠেংরী! এক অনন্য ব্যক্তি যিনি নিজেই এক প্রতিষ্ঠান। একজন ভবিষ্যৎ দ্রষ্টা, দার্শনিক যার অনুমান ক্ষমতা , দূরদর্শিতা এবং চিন্তন তথা পরিকল্পনা রূপায়ণের ক্ষমতা ভারতবর্ষে এমন একটি প্রজন্মের সৃষ্টি করেছে, যারা অধোগতিকে ঊর্ধ্বগতিতে রূপান্তর করতে শুধুমাত্র প্রয়াসী হননি, পরিবর্তন করছেন এবং করে চলেছেন। এই প্রজন্মের সিদ্ধান্ত গ্রহণকারীরা রাষ্ট্রঋষির রোপিতRead More →

করোনা অতিমারির প্রেক্ষিতে ভারতবর্ষের অর্থনৈতিক কর্মকান্ড ও নীতিগত ক্ষেত্রে মৌলিক পরিবর্তন পরিলক্ষিত হচ্ছে। অর্থনৈতিক বিশ্বায়ন যে একটি সম্পূর্ণরূপে ভ্রান্ত ধারণা — চলতি করোনা সংকট সেদিকেই নিশ্চিত রূপে ইঙ্গিত করছে। দ্বন্দ্ব-মুক্ত পৃথিবী বাস্তবিকভাবেই অসম্ভব। সামাজিক প্রেক্ষিত ও সাংস্কৃতিক মূল্যবোধের পরিবর্তনের সাথে সাথে অর্থনৈতিক প্রতিষ্ঠান ও অর্থনীতির মৌলিক বিষয়গুলোর পরিবর্তন অবশ্যম্ভাবী। প্রথমRead More →

(ভারতীয় কিষান সঙ্ঘের মুখপত্র, পশ্চিমবঙ্গ প্রান্ত)Bharatiya Kishan Bartaরাষ্ট্রঋষি দত্তপন্থ ঠেংড়ী বিশেষ ই-সংখ্যাRashtrarishi Dattapanth Thengedi Special Issue. দ্বিতীয় বর্ষ★বিশেষ সংখ্যা (প্রস্তুতি সংখ্যা)★১০ ই নভেম্বর, ২০২০, ২৪ শে কার্তিক, ১৪২৭, কৃষ্ণা দশমী ★বিনিময়: বৈদ্যুতিন মুক্ত পত্রিকা ভারতীয় কিষান বার্তা’-র পক্ষে শ্রী গোপেন বেরা কর্তৃক ৫৭৪, ভি. আই. পি. নগর, কলকাতা – ৭০০Read More →

গতবছর ঠেংড়ীজীর জন্মশতবর্ষিকী উৎযাপনের উদ্যোগ নিচ্ছিলাম। এক বামপন্থী বিচার ধারার মানুষ প্রশ্ন করলেন, আপনি জানেন, আপনাদের দত্তপন্থ ঠেংড়ী কখনো পুরস্কার গ্রহণ করেন নি, পারিতোষিক নেননি, বড় রাজনৈতিক পদ গ্রহণ করেন নি, মন্ত্রীসান্ত্রী হন নি। ভারতীয় মজদুর সঙ্ঘ প্রতিষ্ঠা করতে গিয়ে ব্যক্তিপুজো, জন্মদিন পালনের বিরোধিতা করেছিলেন, নেতার নামে জয়ধ্বনির বিপক্ষে ছিলেন!Read More →

ভারতীয় কিষান সঙ্ঘ, ভারতীয় মজদুর সঙ্ঘ সহ একগুচ্ছ সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা ছিলেন রাষ্ট্রঋষি দত্তপন্থ বাপুরাও ঠেংড়ী। তাঁরই জন্মশতবর্ষ পালিত হচ্ছে ২০১৯-২০ বর্ষে। রাষ্ট্রঋষির জন্মশতবর্ষ উৎযাপনে ভারতীয় কিষান সঙ্ঘ প্রথমাবধি সচেষ্ট হয়েছে। কিন্তু সঙ্ঘ চেষ্টা করছে শুধু শ্রবণে, অধ্যয়নে, মননে নয়; রাষ্ট্রঋষি যেন উপস্থিত হন আমাদের কর্মে ও রূপায়ণে। আমাদের সার্বিক বোধেরRead More →

রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের (আরএসএস) সদস্যদের বাইরে খুব কম লোকই দত্তপন্থ ঠেংড়ীর নাম শুনেছেন। আজীবন স্বয়ংসেবক (আরএসএসের স্বেচ্ছাসেবক) দত্তপন্থ ঠেংড়ী (১৯২০-২০০৪) সংঘের মধ্যে সম্ভবত সবচেয়ে প্রভাবশালী অর্থনৈতিক চিন্তাবিদ ছিলেন। তিনি কেবল ভারতীয় মজদুর সঙ্ঘ এবং ভারতীয় কিষান সঙ্ঘের আলোক-দিশারী ছিলেন না, তিনি অর্থনৈতিক চিন্তাভাবনার মধ্যে দিয়ে স্বদেশী জাগরণ মঞ্চের (এসজেএম) প্রতিষ্ঠাওRead More →

রাষ্ট্রঋষি শ্রী দত্তপন্থ বাপুরাও ঠেংড়ী মহারাষ্ট্রের (বিদর্ভ) ওয়ার্ধা জেলার আর্বী গ্রামে ১৯২০ সালের ১০ই নভেম্বর দীপাবলির শুভদিনে জন্মগ্রহণ করেন। তার পিতা ছিলেন শ্রী বাপুরাও দাজিবা ঠেংড়ী, মাতা শ্রীমতী জানকি দেবী। তিনি দত্তপন্থ নামে প্রসিদ্ধ হয়েছেন। ছোটবেলায় ওনাকে দত্তা, দত্তু, পন্ত, বাবা ইত্যাদি নামে ডাকা হত। ওনার মাতা সংসারের জন্য ভক্তি-পথগামীRead More →

ভারতবাসীর হৃদয়কমলে তিনি ‘রাষ্ট্রঋষি’। পারিবারিক নাম দত্তাত্রেয় বাপুরাও ঠেংড়ী। তাঁর জন্ম ১৯২০ সালের কার্ত্তিক অমাবস্যার দিন, অর্থাৎ দীপাবলির দিন। জন্মস্থান নাগপুরের নিকট ওয়ার্ধার আর্বী গ্রামে। পিতা বাবুরাও দাজীবা ঠেংড়ী একজন নামকরা আইনজীবী ছিলেন। মা জানকীবাই অত্যন্ত ধার্মিক প্রবৃত্তির মহিলা ছিলেন। বাস্তবে দু’জনেই দত্তভগবানকে ইষ্ট দেবতার হিসেবে মানতেন, দু’জনে মনে করতেনRead More →

ভারতীয় কিষান বার্তার প্রতিবেদন। ভারতীয় কিষান সঙ্ঘের তরফে দেশজুড়ে সংগঠনের প্রতিষ্ঠাতা রাষ্ট্রঋষি দত্তপন্থ ঠেংড়ীর জন্মশতবর্ষ পালিত হয়। বাদ যায় নি পশ্চিমবঙ্গও। এ রাজ্যে অত্যন্ত ভাবগম্ভীর পরিবেশে এবং বহু মানুষকে সঙ্গে নিয়ে পালিত হয় শতবর্ষের অনুষ্ঠান। মূল লক্ষ্য ছিল শতবর্ষ পালনের মাধ্যমে জন সংযোগ বাড়ানো এবং জন-জাগরণের মাধ্যমে সাংগঠনিক বিস্তার। প্রসঙ্গতRead More →

চাষের মধ্যে ফলচাষ যে লাভজনক, চারা তৈরির ছোট নার্সারী গড়ে তুললে যে কৃষিকাজে আত্মনির্ভরতা আনা সম্ভব, তা হাতেকলমে বুঝিয়ে দিতে হরিণঘাটা ব্লকের কৃষিজীবী মানুষদের জন্য বিশেষ প্রশিক্ষণের বন্দোবস্ত করেছে বিধানচন্দ্র কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের ফল গবেষণা কেন্দ্রের বিজ্ঞানীরা। গত মহাষষ্ঠীর পুণ্যদিনটি ছিল এই প্রশিক্ষণের বোধন কার্যক্রম। আগামী কয়েকমাস ধরে তারা গবেষণা খামারেRead More →