দান-খয়রাতির রাজনীতিতে আর্থিক সমস্যায় পড়ছে দেশ, কটাক্ষ প্রধান বিচারপতির

লক্ষ্য করে দেখা গিয়েছে, বিভিন্ন রাজনৈতিক দলগুলি নির্বাচনের আগে সাধারণ মানুষকে বিনামূল্যে নানা সুবিধে পাইয়ে দেওয়ার কথা ঘোষণা করে। এর ফলে, দেশের অর্থনৈতিক ব্যবস্থায় চরম ক্ষতি হচ্ছে। এমনটাই জানাল সুপ্রিম কোর্ট। পাশাপাশি শীর্ষ আদালত পর্যবেক্ষণ করে জানিয়েছে, এই গোটা বিষয়টি বিস্তারিতভাবে বিবেচনা করার জন্য আগামী দিনে একটি কমিটি গঠন করার প্রয়োজন রয়েছে।

এই প্রসঙ্গে কথা বলতে গিয়ে ভারতের প্রধান বিচারপতি এনভি রমনা জানিয়েছেন, ‘বিনামূল্যে ভোটারদের সুবিধা প্রদানের কথা জানিয়ে আদতে লাভবান হয় রাজনৈতিক দলগুলি।’ উল্লেখ্য, কেন্দ্রের পক্ষ থেকে একটি মামলা দায়ের করে জানানো হয়েছিল ভোটারদের সমর্থন পেতে নির্বাচনের ঠিক আগে রাজনৈতিক দলগুলি বিভিন্ন পরিষেবা দেওয়ার কথা ঘোষণা করে সম্পূর্ণ বিনামূল্যে। আর খুব স্বাভাবিকভাবে তাতে প্রভাবিত হন ভোটাররা। এরপর সেই প্রতিশ্রুতি পূরণ করতে গিয়ে নেমে আসে আর্থিক বিপর্যয়। তখন সবকিছু ঠিকভাবে সামলে উঠতে পারে না সরকার।

সেই কারণে এই ব্যাপারে আগাম পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে নির্বাচন কমিশনকে। এ বিষয় এনভি রমনা আরও বলেছেন যে, ”ভারতের সকল করদাতা মনে করেন, উন্নয়নমূলক কাজে ব্যয় করার জন্য তাঁরা সরকারকে কর দেন না। কিন্তু তাঁদের মতামত প্রকাশ করা এবং আলোচনা করার জন্য একটি ফোরাম তৈরি করা প্রয়োজন। মানুষকে বিনামূল্যে সুবিধা দেওয়ার কথা বলে আসলে লাভবান হয় রাজনৈতিক দলগুলির।” যদিও, এখনও পর্যন্ত সুপ্রিম কোর্টের পক্ষ থেকে এই মামলায় কোন রায় দেওয়া হয়নি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.