কাঞ্চনজঙ্ঘা অভিযানে মর্মান্তিক পরিণতি! মৃত্যু দুই বাঙালি পর্বতারোহীর

কলকাতার দুই পর্বতারোহীর মৃত্যু হল কাঞ্চনজঙ্ঘায়। নেপালের দিক থেকে পর্বতারোহনে গিয়েছিলেন বিপ্লব বৈদ্য এবং কুন্তল কাড়ার। যে সংস্থার সাহায্যে তাঁরা গিয়েছিলেন তাদের তরফেই এই মৃত্যুর খবর জানানো হয়েছে। প্রায় ২৬,২৪৬ ফুট উচ্চতায় তাঁদের মৃত্যু হয়েছে।

পিক প্রোমোশন হাইকিং কোম্পানির পাসাং শেরপা জানিয়েছেন, বুধবার বছর ৪৮-এর বিপ্লব বৈদ্য, প্রায় ২৮, ১৬৯ ফুট পর্যন্ত উঠেছিলেন। কিন্তু উচ্চতাজনিত অসুস্থতার কারণে নামার সময় তাঁর মৃত্যু হয়েছে বলে জানিয়েছে ওই সংস্থা। অন্যদিকে, বছর ৪৬-এর কুন্তল কাড়ারের মৃত্যু হয়েছে ওপরের দিকে ওঠার সময়। তাঁর দুজনেই কলকাতার। কাঞ্চনজঙ্ঘা অভিযানের পর চার নম্বর ক্যাম্পে গিয়ে ফিরে এসেছেন আরও তিন বাঙালি পর্বতারোহী বাঙালি রুদ্রপ্রসাদ হালদার, শেখ সাহাবুদ্দিন এবং রমেশ রায়। সূত্রের খবর অনুযায়ী রুদ্রপ্রসাদের শরীরে ফ্রস্ট বাইট দেখা দিয়েছে আৎ রমেশ রায় চোখে দেখতে পাচ্ছেন না। ১৪ মে পাঁচজন ক্যাম্প চার থেকে সামিটের উদ্দেশে রওনা দেন। অসুস্থ হয়ে পড়ায় বিপ্লব বৈদ্যকে ক্যাম্পে ফিরিয়ে আনা হয়। অন্যদিকে ফেরার সময় কুন্তল কাড়ারের শ্বাসকষ্ট শুরু হয়। ক্যাম্পে ফিরেই তাঁর মৃত্যু হয় বলে জানা গিয়েছে। এঁরা সবাই সোনারপুর আরোহী ক্লাবের সদস্য ছিলেন বলে জানা গিয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.