সোশ্যাল মিডিয়ায় শ্রীরামপুরের তৃণমুল প্রার্থী কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ‘কুরুচিকর’ ছবি ঘিরে উত্তেজনা। বিজেপির রাস্তা অবরোধ, লাঠিচার্জ পুলিশের। শ্রীরামপুরের বাসিন্দা অমানিস আইয়ার নামে এক আরএসএস নেতার বিরুদ্ধে কুরুচিকর লেখা সব ছবি আপলোড করেন অভিযোগ করেন কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই ঘটনার জেরেই শেওড়াফুলি ফাঁড়িতে অভিযোগ দায়ের করে তৃণমূল কংগ্রেস। অভিযোগের ভিত্তিতে আরএসএসের হুগলি জেলার কার্যবাহক অমানিশ আইয়ারকে আটক করে শেওড়াফুলি ফাঁড়ির পুলিশ। তার জেরে বিজেপি ও আরএসএস-এর তরফে শ্রীরামপুর ফাঁড়িতে বিক্ষোভ দেখানো হয়। পরে তারা শেওড়াফুলি জিটি রোড অবরোধ করে। এরপর ঘটনাস্থলে আসে পুলিশ। পুলিশকে ঘিরেও চলে বিক্ষোভ। পুলিশ বাহিনী বিজেপি সমর্থকদের ওপর মৃদু লাঠিচার্জ করে। আর তার জেরেই শেওড়াফুলি ফাঁড়ি ভাঙচুর করে আরএসএস ও বিজেপি সমর্থকেরা।

জানা গিয়েছে এই ঘটনায় পুলিশ ৮ জনকে আটক করেছে। বিজেপির শ্রীরামপুর সাংগঠনিক জেলা সভাপতি সুমন ঘোষ বলেন, পোস্টে এমন কিছু লেখা নেই যে তাঁকে থানায় এনে গ্রেফতার করার হুমকি দিতে হবে। এরই প্রতিবাদে এলাকার সাধারণ মানুষ থানায় এসে জানতে চায় কেন তাঁকে থানায় নিয়ে আসা হয়েছে। এই প্রশ্ন করায় পুলিশ যথেচ্ছভাবে লাঠিচার্জ করে জনতার উপর। আমরা চাই ন্যায়বিচার।

অন্যদিকে তৃণমূলের তরফে জানানো হয়, সোশ্যাল সাইটে কুরুচিকর মন্তব্য সহ ছবি আপলোড করার জন্য কল্যাণ বন্দ্যোপাধ্যায়ের ভাবমূর্তি নষ্ট হয়েছে। দোষীদের শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.