আগুনে পুড়ে ছাই দার্জিলিংয়ের হেরিটেজ হোটেল শাংগ্রিলা ! আতঙ্ক শৈলশহরে

ভয়াবহ আগুনে ক্ষতিগ্রস্থ শৈলশহরের অন্যতম একটি পুরনো হোটেল শাংগ্রিলা। দার্জিলিংয়ের চৌরাস্তার কাছে নেহেরু রোডে হোটেল কাম বার, রেস্তোরাঁয় ভয়াবহ আগুন লাগে। বৃহস্পতিবার দুপুর পৌনে বারোটা নাগাদ হোটেলের রেস্তোরাঁ থেকে ধোঁয়া বের হতে দেখতে পান এক হোটেল কর্মী। সঙ্গে সঙ্গে ঘটনার খবর দেওয়া হয় দমকল অফিসে।

 দমকলের দু'টি ইঞ্জিনের প্রায় আড়াই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। দাউ দাউ করে জ্বলতে থাকে হোটেলের রেস্তোরাঁ। হোটেলের নিজস্ব অগ্নি নির্বাপন যন্ত্রাংশ দিয়ে আগুন নেভানোর কাজ শুরু করা হয়। কিন্তু আগুনের ভয়াবহতা বেশি থাকায় হোটেলের অর্ধ শতাংশ পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

দমকলের দু’টি ইঞ্জিনের প্রায় আড়াই ঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে। দাউ দাউ করে জ্বলতে থাকে হোটেলের রেস্তোরাঁ। হোটেলের নিজস্ব অগ্নি নির্বাপন যন্ত্রাংশ দিয়ে আগুন নেভানোর কাজ শুরু করা হয়। কিন্তু আগুনের ভয়াবহতা বেশি থাকায় হোটেলের অর্ধ শতাংশ পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

 দার্জিলিং এর প্রাচীন হোটেল সহ রেস্তোরাঁটি কাঠের তৈরি থাকায় চটজলদি আগুন ছড়িয়ে পড়ে। নিয়ন্ত্রণে আনতে হিমশিম খেতে হয় দমকল কর্মীদের। সাধারণত দুপুর সাড়ে ১২টা নাগাদ হোটেল খোলা হয়ে থাকে। তাই আগুন লাগার সময়ে রেস্তোরাঁয় কোনও লোকজন ছিল না। এমনকী হোটেলের চারটে রুমেও কোনো পর্যটক ছিল না। তাই কোনও হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

দার্জিলিং এর প্রাচীন হোটেল সহ রেস্তোরাঁটি কাঠের তৈরি থাকায় চটজলদি আগুন ছড়িয়ে পড়ে। নিয়ন্ত্রণে আনতে হিমশিম খেতে হয় দমকল কর্মীদের। সাধারণত দুপুর সাড়ে ১২টা নাগাদ হোটেল খোলা হয়ে থাকে। তাই আগুন লাগার সময়ে রেস্তোরাঁয় কোনও লোকজন ছিল না। এমনকী হোটেলের চারটে রুমেও কোনো পর্যটক ছিল না। তাই কোনও হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

 তবে স্থানীয় সূত্রে খবর ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কয়েক লক্ষ টাকা। কেননা হোটেলটি হেরিটেজ হিসেবেই স্বীকৃত। প্রাথমিকভাবে দমকল কর্মীদের অনুমান, গ্যাসের সিলিন্ডারের পাইপ ফেটেই আগুন লেগেছে। তবুও আগুন লাগার সঠিক কারণ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রাচীন এই হোটেলে আগুন লাগায় দার্জিলিংয়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। কেননা হেরিটেজ এই হোটেলের সঙ্গে শৈলশহরের অনেক পুরনো স্মৃতিই জড়িয়ে রয়েছে।

তবে স্থানীয় সূত্রে খবর ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কয়েক লক্ষ টাকা। কেননা হোটেলটি হেরিটেজ হিসেবেই স্বীকৃত। প্রাথমিকভাবে দমকল কর্মীদের অনুমান, গ্যাসের সিলিন্ডারের পাইপ ফেটেই আগুন লেগেছে। তবুও আগুন লাগার সঠিক কারণ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রাচীন এই হোটেলে আগুন লাগায় দার্জিলিংয়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। কেননা হেরিটেজ এই হোটেলের সঙ্গে শৈলশহরের অনেক পুরনো স্মৃতিই জড়িয়ে রয়েছে।

 তবে স্থানীয় সূত্রে খবর ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কয়েক লক্ষ টাকা। কেননা হোটেলটি হেরিটেজ হিসেবেই স্বীকৃত। প্রাথমিকভাবে দমকল কর্মীদের অনুমান, গ্যাসের সিলিন্ডারের পাইপ ফেটেই আগুন লেগেছে। তবুও আগুন লাগার সঠিক কারণ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রাচীন এই হোটেলে আগুন লাগায় দার্জিলিংয়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। কেননা হেরিটেজ এই হোটেলের সঙ্গে শৈলশহরের অনেক পুরনো স্মৃতিই জড়িয়ে রয়েছে।

তবে স্থানীয় সূত্রে খবর ক্ষয়ক্ষতির পরিমাণ কয়েক লক্ষ টাকা। কেননা হোটেলটি হেরিটেজ হিসেবেই স্বীকৃত। প্রাথমিকভাবে দমকল কর্মীদের অনুমান, গ্যাসের সিলিন্ডারের পাইপ ফেটেই আগুন লেগেছে। তবুও আগুন লাগার সঠিক কারণ খতিয়ে দেখা হচ্ছে। প্রাচীন এই হোটেলে আগুন লাগায় দার্জিলিংয়ে চাঞ্চল্য ছড়িয়ে পড়ে। কেননা হেরিটেজ এই হোটেলের সঙ্গে শৈলশহরের অনেক পুরনো স্মৃতিই জড়িয়ে রয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.