সিংহীর বসন্ত-বিলাস! দেখে মুগ্ধ মোদী, ছবি ভাইরাল নেট-দুনিয়ায়

বসন্ত এসে গেছে। পলাশ গাছে ফুলের আগুন লেগেছে দিকে দিকে। তাই দেখে অনেকেরই মন উদাসী হয়ে উঠছে, উজ্জ্বল রঙের নেশা জেগেছে। কিন্তু সেই অনেকের মধ্যে যে সিংহ-ও পড়ে, তা জানা গেল সোমবার গির অরণ্যে ধরা পড়া একটি ছবিতে। দেখা যাচ্ছে, লাল হয়ে রেঙে ওঠা একটি গাছে চড়ে বসেছে পশুরাজ। ভাবখানা এমন, সিংহী বলে কি আমার শখ-আহ্লাদ থাকতে নেই?

এই ছবিই আবার সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। তাঁর নিজের রাজ্য গুজরাতের জুনাগড় অরণ্যের একটি পলাশ গাছে সিংহী চেপে পড়ার সেই আকর্ষণীয় ছবিটি তার পরে ভাইরাল হতে বেশি সময় লাগেনি। গির অরণ্যের বীট গার্ড দীপক, বন্যপ্রাণী অভয়ারণ্যে এই দুর্লভ দৃশ্যটি দেখতে পেয়ে একটুও না দেরি করে ছবিটি তুলে ফেলেন।

এর পরে ছবিটি প্রথমে শেয়ার করেন জুনাগড়ের বন বিভাগের প্রশাসক সুনীল কুমার বেরওয়াল। তার পরেই তা চোখে পড়ে স্বয়ং প্রধানমন্ত্রীর। “ম্যাজেস্টিক গির সিংহ….অসাধারণ সুন্দর ছবি!” ছবিটি সোমবার শেয়ার করে এমনই ক্যাপশন দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

দেখুন সেই টুইট।

তার পর থেকেই বিরল এই গির সিংহের ছবিতে লাখো মানুষ নিজেদের প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন। ডাঃ সুনীল বেরওয়াল এই অসামান্য ছবিটি তোলার জন্য ফোটোগ্রাফারের প্রশংসা করেছেন। তিনি লিখেছেন, “দীপক একদম তাঁর মতো করে জঙ্গলটা দেখেন। ওঁর সমস্ত ছবি দেখে আমার তেমনটাই মনে হয়েছে। এই ছবিটি সবাইকে দেখাতে পেরে ভালো লাগছে।”– লিখেছেন তিনি।

গুজরাটের গির অরণ্য বিশ্বের অন্যতম বিখ্যাত এশিয়াটিক সিংহের শেষ আবাসস্থল। ওয়ার্ল্ড ওয়াইড ফান্ড ফর নেচারের মতে, গির অভয়ারণ্যের ৮৫০ বর্গ মাইলে বসবাস করে প্রায় ৫০০টি সিংহ। এই বসন্তে যে তাদের মনেও রং লেগেছে, তা বোঝা গেল সাম্প্রতিক এই ছবিটি দেখেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.