ভোটযুদ্ধ শেষ, নবান্নে না গিয়ে বাড়িতেই থাকলেন মমতা

নবান্নে নয়, লোকসভা ভোট শেষে সারাদিন বাড়িতেই কাটালেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। গত ৩ এপ্রিল কোচবিহার থেকে শুরু হয়েছিল তাঁর নির্বাচনী প্রচার যাত্রা, শেষ হয়েছিল ১৬ মে ভবানীপুর কেন্দ্রে পদযাত্রা দিয়ে। কিন্তু তারপরেও কালীঘাটে বসেই ভোটপর্ব পরিচালনার যাবতীয় দায়িত্ব সামলেছেন তিনি। রবিবার রাজ্যের নয়টি কেন্দ্রে নজর রেখেছিলেন তৃণমূল সুপ্রিমো। প্রশাসনিক মহলের ধারণা ছিল ভোটপর্ব শেষে সপ্তাহের প্রথমদিনই নবান্ন এসে রাজ্যের কাজকর্ম দেখবেন মমতা। কিন্তু প্রশাসনিক কর্তাদের ভুল প্রমাণ করে এদিন দিনভর ঘরেই কাটালেন তিনি। সোমবার সকালের দিকে উত্তরপ্রদেশে প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী তথা সমাজবাদী পার্টির নেতা অখিলেশ যাদব ফোন করেন মুখ্যমন্ত্রীকে। দুই নেতা-নেত্রীর মধ্যে, কথা হয় বেশ কিছুক্ষণ। উত্তরপ্রদেশ, পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচনপর্ব সহ দিল্লির সরকার গঠন নিয়ে আলোচনা হয় তাদের মধ্যে। সূত্রের খবর এই সময় অখিলেশ মমতাকে আশ্বাস দিয়ে জানান, এক্সিট পোল মিলবে না আস্থা রাখুন আমরা উত্তরপ্রদেশে পশ্চিমবঙ্গের নির্বাচনপর্ব সহ দিল্লির সরকার গঠন নিয়ে আলোচনা হয় তাদের মধ্যে। সূত্রের খবর এই সময় অখিলেশ মমতাকে আশ্বাস দিয়ে জানান, এক্সিট পোল মিলবে না আস্থা রাখুন আমরা উত্তরপ্রদেশে মোদিকে আটকে দেব। মুখ্যমন্ত্রীও তাতে সায় দিয়েছেন বলে জানা গিয়েছে। এদিন বিকেলে মুখ্যমন্ত্রীর বাড়িতে আসেন তেলেগু দেশম পার্টির সভাপতি চন্দ্রবাবু নাইডু। সন্ধ্যা সোয়া ছয়টার কিছু পরে চন্দ্রবাবু কালীঘাট ছাড়লেও, মমতা থেকেছেন তাঁর অন্দরমহলেই।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.