ফের রাজ্যে গণতন্ত্র লুণ্ঠিত। আবারও লাইভ শো চলাকালীন বিজেপির কর্মীদের উপর হামলা চালাল তৃণমূলের গুন্ডা বাহিনী। এর আগে কোচবিহারে তৃণমূলের প্রার্থী নিশীথ প্রামাণিক আর কোচবিহার জেলার তৃণমূলের জেলা সভাপতি রবীন্দ্রনাথ ঘোষ এর লাইভ ডিবেট চলাকালীন তৃণমূলের কর্মীরা বিজেপির কর্মীর উপরে হামলা চালিয়েছিল। এবারও তাই হল।

আজ আসানসোলে ঊষাগ্রামের একটি হোটেলে বেসরকারি একটি টিভি চ্যানেল লাইভ ডিবেটের আয়োজন করেছিল। ওই হোটেলের গা লাগোয়া তৃণমূলের পার্টি অফিস। লাইভ ডিবেট চলাকালীন তৃণমূল কর্মীরা একে একে হোটেলের বাইরে জমায়েত করতে থাকে।

এরপর তাঁরা হোটেলে ঢুকে বিজেপি নেতা জীতেন চ্যাটার্জী (Jiten chatterjee) আর অভিজিৎকে মারধর করে। জনা ৫০-৬০ জন তৃণমূল কর্মী হোটেলে ঢুকে তাণ্ডব চালায় বলে বিজেপির অভিযোগ। খবর পেয়ে সাথে সাথে বিজেপির সাংসদ তথা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী বাবুল সুপ্রিয় (babul supriyo) হোটেলে যান, এবং সেখান থেকে সিসিটিভি ফুটেজ সংগ্রহ করেন।

সেই সিসিটিভি ফুটেজ নিয়ে তিনি পাশের তৃণমূল কার্যালয়ে যান। কিন্তু বাবুল সেখানে যাওয়ার আগেই তড়িঘড়ি কার্যালয়ে তালা ঝুলিয়ে পালায় তৃণমূলের কর্মীরা। অভিযুক্তদের গ্রেফতারের দাবিতে দক্ষিণ আসানসোল থানা ঘেরাও করেন বাবুল সুপ্রিয়। জিটি রোড অবরোধ করে দেখানো হয় বিক্ষোভ। অবশেষে পুলিশের আশ্বাসে অবরোধ তুলে নেওয়া হয়।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.