বাংলায় ভোট পরবর্তী সন্ত্রাসে নিহত ১৮, মমতাকে দায়ী করলেন ভাগবত

লোকসভা ভোট সম্পন্ন হয়েছে অনেকদিন আগেই। কিন্তু এখনও রাজ্যের বিভিন্ন প্রান্তে অব্যাহত রয়েছে রাজনৈতিক অশান্তি, খুন, সংঘর্ষের মতো ঘটনা। এবার এপ্রসঙ্গে মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে আক্রমণ করলেন সঙ্ঘপ্রধান মোহন ভাগবত। রবিবার নাগপুরের একটি অনুষ্ঠানে নাম না করে মমতার উদ্দেশ্যে তিনি বলেন, “কী হচ্ছে বাংলায়? আর কোনও প্রান্তে ভোটের পরে এমন হচ্ছে কী? প্রশাসন এসব উপেক্ষা করতে পারে না।”

উল্লেখ্য, লোকসভা ভোট শুরু হওয়া থেকে এখনও পর্যন্ত রাজ্যে প্রায় ১৮ জন মানুষ খুন হয়েছে! আবার ভোট প্রক্রিয়া শেষ হলেও নিত্যদিন রাজনৈতিক সংঘর্ষ লেগেই রয়েছে রাজ্যের বিভিন্ন এলাকায়। যা নিয়ে ঘরে-বাইরে মমতার প্রশাসন অনেকটাই কোণঠাসা। মমতার সংখ্যালঘু আবেগকে খুঁচিয়ে কোনো কোনো বিজেপি নেতা আবার ব্যাঙ্গের সুরে বলছেন, যুক্তরাষ্ট্রীয় কাঠামো না মেনে পশ্চিম বাংলাকে মমতা ‘মিনি পাকিস্তান’ করতে চাইছেন! এবার সেই বিজেপি নেতাদের সুর শোনা গেল সঙ্ঘের গলায়। এদিন সঙ্ঘ প্রধান রাজ্যের কর্তব্য মনে করিয়ে দিয়ে বলেন, “আইনের মর্যাদা ও দেশের অখণ্ডতা অক্ষুন্ন রেখে আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করা প্রশাসনের কর্তব্য।” পাশাপাশি মুখ্যমন্ত্রী হিসেবে মমতার যোগ্যতা নিয়ে প্রশ্ন তুলে বলেন, যিনি রাজ্যে আইনের শাসন অক্ষুন্ন রাখা থেকে বিচ্যুত হন, তাঁকে কী রাজা বলা যায়?

প্রসঙ্গত, মোদী প্রথমবার ক্ষমতায় আসার পরেই দেশের বিভিন্ন প্রান্তে সঙ্ঘের দাপট ক্রমশ বৃদ্ধি পেয়েছে। কিন্তু বাংলায় সঙ্ঘের দাপট সেভাবে চোখে পড়েনি। এবারের নির্বাচনে বাংলা থেকে ১৮টি আসন জিতেছে বিজেপি। তাই এই অবস্থায় সঙ্ঘ চাইছে বাংলায় তাঁদের শক্তি বৃদ্ধি করতে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.