নীরব মোদীর জামিনের আর্জি খারিজ, কাগজপত্র তৈরি করার জন্য ভারতকে ছয় সপ্তাহ সময় দিলো ব্রিটেনের আদালত

পাঞ্জাব ন্যাশানাল ব্যাংকের থেকে টাকা নিয়ে পালিয়ে যাওয়া নীরব মোদীর মামলায় ব্রিটেনের আদালতে বড়সড় সাফলতা পেলো ভারত। ব্রিটেনের আদালত পলাতক হীরে ব্যাবসায়ি নীরব মোদীর জমানতের আর্জি খারিজ করে দিয়েছে।

এই মামলায় আগামী শুনানি ২৬শে এপ্রিল হবে বলে জানায় আদালত। ব্রিটেনের আদালত এটাও জানিয়ে দিয়েছে যে, তাঁকে আর আদালতে আনা হবেনা। এবার থেকে ভিডিও কনফারেন্স এর মাধ্যমে এই মামলার শুনানি হবে।

ব্রিটেনের আদালত ভারতীয় আধিকারিকদের সমস্ত কাগজপত্র ঠিক করার জন্য ছয় সপ্তাহের সময় দিয়েছে। লন্ডনের ওয়েস্ট মিনিস্টার ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে পৌঁছানর আগে ভারতীয় আধিকারিকদের তরফ থেকে আইনজীবী টোবি কেডমেন বলেছিলেন, যদি আজকে নীরব মোদীর জামিন মঞ্জুর হয়ে যায়, তাহলে আমরা উচ্চতম আদালতে আবেদন করব। আমরা নীরব মোদীকে ভারতে ফিরিয়ে নিয়ে যাওয়ার সবরকম চেষ্টা চালাবো।

উল্লেখনীয় বিগত শুনানির সময়েও লন্ডনের আদালত নীরব মোদীর জামিন নামঞ্জুর করেছিল। বিচারক ওনার শুনানিতে বলেছিলেন, এই মামলা প্রচুর পরিমাণের অর্থের তছরুপের, আর অভিযুক্ত আবার পালিয়েও যেতে পারে।

নীরব মোদী জমানতের আর্জি দায়ের করে বলেছিল তাঁর কাছে নিজেকে বাঁচানোর জন্য অনেক নথি আছে। নীরব পাঁচ লক্ষ পাউন্ড সিকিউরিটি মানি জমানতের রুপে জমা করার জন্য প্রস্তাব দিয়েছিল। কিন্তু লন্ডনের আদালত সেই আবেদনকে খারিজ করেছিল। মঙ্গলবার ভারতীয় আধিকারিকদের নির্দেশে নীরব মোদীকে গ্রেফতার করেছিল লন্ডন পুলিশ।


Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.