সম্পত্তি ফিরে পাবে কাশ্মীরি পণ্ডিতরা, বড় পদক্ষেপ নিল কেন্দ্র সরকার

জম্মু কাশ্মীরের উপরাজ্যপাল মনোজ সিনহা মঙ্গলবার কাশ্মীরি পণ্ডিতদের জন্য একটি ওয়েবসাইট লঞ্চ করলেন। ওয়েবসাইটের উদ্বোধনের পর উপরাজ্যপাল জানান, ‘ওয়েবসাইটটি আজ থেকেই কাশ্মীরি পণ্ডিতদের সেবায় নিয়োজিত হচ্ছে। যদিও দুই সপ্তাহ আগেই একটি ওয়েবলিঙ্কের মাধ্যমে এই ওয়েবসাইট শুরু করেছিলাম। আমরা এই ওয়েবসাইটের মাধ্যমে এখনও পর্যন্ত ৭৪৫টি অভিযোগ পেয়েছি।”

জানা গিয়েছে যে, এই ওয়েবসাইটে কাশ্মীরে ঘরবাড়ি হারানো কাশ্মীরি পণ্ডিতরা নিজেদের জমি ফেরত পাওয়ার জন্য অভিযোগ দায়ের করতে পারবেন। ওয়েবসাইটে আবেদনের পর একটি ইউনিক আইডি দেওয়া হবে। এরপর অভিযোগ সরাসরি জেলা ম্যাজিস্ট্রেটকে পাঠানো হবে আর সেখান থেকে অভিযোগ অনুযায়ী কাজ শুরু হবে।


পাশাপাশি অভিযোগের ভিত্তিতে তথ্য নেওয়ার জন্য দুটি হেল্পলাইন নম্বরও জারি করা হয়েছে। বলে দিই, কেন্দ্র আর রাজ্য সরকার কাশ্মীরি পণ্ডিতদের তাঁদের সম্পত্তি ফিরিয়ে দেওয়ার জন্য প্রচেষ্টায় লেগে রয়েছে। আর সেই প্রচেষ্টার মধ্যেই কেন্দ্র এবং উপরাজ্যপালের এই পদক্ষেপ যুগান্তকারী বলে মানছে ওয়াকিবহাল মহল।

সম্প্রতি জম্মু কাশ্মীরের উপরাজ্যপাল মনোজ সিনহা উপত্যকায় ফিরতে চাওয়া কাশ্মীরি পণ্ডিতদের পরিবারের জন্য রেজিস্ট্রেশন করার অনিবার্য বলে জানিয়েছিলেন। এরফলে দেশ-বিদেশের কাশ্মীরি পণ্ডিতরা সাহায্য আর পুনর্বাসনের জন্য সরাসরি অনলাইনে রেজিস্ট্রেশন করতে পারবেন।

উল্লেখ্য, জুনের শেষ পর্যন্ত ৯৮ হাজার ৬০০ কাশ্মীরি প্রবাসীদের আবাসের প্রমাণপত্র দেওয়া হয়েছে। আধিকারিকরা জানিয়েছেন, ৯০ হাজার ৪৩০ জন কাশ্মীরি পণ্ডিতদের আবাসের প্রমাণপত্র জারি করা হয়েছে। আর কাশ্মীর ছেড়ে চলে যাওয়া ২ হাজার ৩৪০ কাশ্মীরি পণ্ডিতদের পরিবারকে নতুন প্রবাসী হিসেবে নথিভুক্ত করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.