মানবতায় বিশ্বাসীদের একত্রিত হয়ে সন্ত্রাসকে পরাস্ত করতে হবে : মোদী

মানবতায় যাঁরা বিশ্বাসী, তাঁদের অবশ্যই একত্রিত হতে হবে ও সন্ত্রাসকে পরাস্ত করতে হবে। ভগবান বুদ্ধের জীবনাদর্শ ব্যাখ্যা করতে গিয়ে এই মন্তব্য করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, বুদ্ধের জীবন ছিল শান্তি, সম্প্রীতি ও সহাবস্থান নিয়ে। বর্তমানে এমন শক্তি রয়েছে যার অস্তিত্ব ঘৃণা, সন্ত্রাস ও হিংসা ছড়িয়ে দেওয়ার উপর নির্ভর করে। এই ধরনের শক্তি উদার গণতান্ত্রিক নীতিতে বিশ্বাস করে না। বুধবার ভিডিও কনফারেন্সিংয়ের মাধ্যমে বুদ্ধ পূর্ণিমা উপলক্ষ্যে আয়োজিত ভার্চুয়াল ভেসক গ্লোবাল অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, “কোভিড-১৯ পরবর্তী সময়ে একই রকম থাকবে না আমাদের পৃথিবী। তবে, মহামারী সম্পর্কে আমাদের এখন আরও ভাল ধারণা তৈরি হয়েছে, যা লড়াইয়ের জন্য আমাদের কৌশলকে শক্তিশালী করবে। আমাদের কাছে ভ্যাকসিন রয়েছে যা প্রাণ বাঁচাতে এবং মহামারীকে পরাস্ত করার জন্য গুরুত্বপূর্ণ। আমাদের বিজ্ঞানীদের জন্য আমরা গর্বিত, যাঁরা করোনা-ভ্যাকসিন নিয়ে কাজ করেছেন।”
চিকিৎসক, নার্স-সহ সমস্ত ফ্রন্টলাইন কর্মীদের ধন্যবাদ জানিয়ে প্রধানমন্ত্রী বলেছেন, “আমি আরও একবার আমাদের ফ্রন্টলাইন স্বাস্থ্যকর্মী, চিকিৎসক, নার্স-যাঁরা নিঃস্বার্থভাবে নিজেদের প্রাণের ঝুঁকি নিয়ে অন্যদের সেবা করছেন, যাঁরা নিজেদের প্রিয়জনকেও হারিয়েছেন, সেই সমস্ত ফ্রন্টলাইন কর্মীদের স্যালুট জানাই। আমি সমবেদনা ব্যক্ত করছি।” প্রধানমন্ত্রী এদিন বলেছেন, “করোনার বিরুদ্ধে আমাদের সর্বাত্মক লড়াইয়েও, মানবতার মুখোমুখি অন্যান্য চ্যালেঞ্জগুলি উপেক্ষা করা যাবে না। চ্যালেঞ্জগুলির মধ্যে একটি হল-জলবায়ু পরিবর্তন। আবহাওয়ার ধরণ বদলে যাচ্ছে, হিমবাহ গলে যাচ্ছে, নদী ও বন বিপদের মধ্যে রয়েছে, আমরা আমাদের পৃথিবীকে আহত থাকতে দিতে পারি না।”
মোদী আরও বলেছেন, “বুদ্ধের জীবন ছিল শান্তি, সম্প্রীতি ও সহাবস্থান নিয়ে। বর্তমানে এমন শক্তি রয়েছে যার অস্তিত্ব ঘৃণা, সন্ত্রাস ও হিংসা ছড়িয়ে দেওয়ার উপর নির্ভর করে। এই ধরনের শক্তি উদার গণতান্ত্রিক নীতিতে বিশ্বাস করে না। যাঁরা মানবতায় বিশ্বাসী, তাঁদের অবশ্যই একত্রিত হতে হবে ও সন্ত্রাসকে পরাস্ত করতে হবে।”

Leave a Reply

Your email address will not be published.

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.